জিয়াউর রহমান উৎপাদন ও উন্নয়নের রাজনীতি প্রবর্তক ছিলেন : ফখরুল

42418_Fakhrul-Islamবিডি রিপোর্ট 24 ডটকম : বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান ছিলেন উৎপাদন ও উন্নয়নের রাজনীতি প্রবর্তক। তিনি বাংলাদেশকে তলাবিহীন ঝুড়ি থেকে সমৃদ্ধ বাংলাদেশে পরিণত করেছিলেন। তার নেতৃত্বের সুমহান আদর্শে বাংলাদেশ বিশ্বের দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়ানোর অনুপ্রেরণা পায়। কিন্তু আওয়ামী লীগ সরকার বাংলাদেশকে বিশ্বের কাছে ছোট করতে চায়। এই কারণে তারা উন্নয়নের রাজনীতি বন্ধ করতে সারাদেশে হত্যা ও গুমের রাজনীতি শুরু করেছে।

তিনি আজ শুক্রবার বেলা ১১টার দিকে রাজধানীর জিয়া উদ্যানে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের ৩৩তম শাহাদতবার্ষিকী উপলক্ষে জিয়াউর রহমানের মাজারে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে একথা বলেন।

তিনি বলেন, সরকার তাদের অবৈধ ক্ষমতা পাকাপোক্ত করতে সারাদেশে বিএনপির নেতাকর্মীদের অপহরণ, গুম ও হত্যা করছে। জনগণ এই অবৈধ ও ফ্যাসিস্ট সরকারকে আর ক্ষমতায় দেখতে চায় না। জনগণ এই সরকারের পতন চায় এবং নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে একটি সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন চায়। আর এর জন্য দেশের জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

তিনি বলেন, আমরা আশা করবো সরকারের শুভ বুদ্ধির উদয় হবে। তারা নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে সব দলের অংশগ্রহণে একটি সুষ্ঠু নির্বাচনের আয়োজন করবে।

সারাদেশে অব্যাহত গুম, খুন, অপহরণের বিরুদ্ধে আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার জন্য নেতাকর্মীদের প্রতি আহŸবান জানান তিনি।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টির সভাপতি শফিউল আলম প্রধান, ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা রহমান, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা এ জেড এম জাহিদ হোসেন, যুগ্ম মহাসচিব বরকত উল্লাহ বুলু, আমান উল্লাহ আমান, অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী আহমেদ, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক খায়রুল কবির খোকন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।