নাটোরে চাঁদা না দেয়ায় বিএনপি কর্মীর হাত কেটে দিয়েছে আ’লীগ কর্মীরা

natore-110শেখ তোফাজ্জ্বল হোসাইন, নাটোর প্রতিনিধি    :
নাটোরের সিংড়া উপজেলার সন্ত্রাসের জনপথ খ্যাত কলম ইউনিয়নের কালিনগর গ্রামে রোববার গভীর রাতে মোহাম্মদ আলী মোল্লা (৩৫) নামের এক বিএনপি কর্মীর কাছে চাঁদা না পেয়ে ডান হাত কেটে দিয়েছে আওয়ামী লীগ কর্মীরা। আহত মোহাম্মদ আলী কালিনগর গ্রামের সাবেক মেম্বার আফাজ উদ্দিন মোল্লার ছেলে। আহতের পরিবার ও স্থানীয় সূত্র জানায়, উপজেলার কলম ইউনিয়নের কালিনগর গ্রামের স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের বিভিন্ন সময় চাঁদা দাবির প্রেক্ষিতে দীর্ঘ দিন ধরে বিএনপি কর্মী মোহাম্মদ আলী পালিয়ে বেড়াচ্ছিলেন। রোববার তার শ্বশুর বাড়ি পার্শ্ববর্তী নাছিয়ার কান্দি গ্রামে বেড়াতে গেলে রাত ২টার দিকে সেখান থেকে পাঁচ থেকে সাত জন সন্ত্রাসী তাকে কালিনগর গ্রামে আওয়ামী লীগ নেতা মইনুল হক চুন্নুর বাড়িতে উঠিয়ে নিয়ে গিয়ে ডান হাত কেটে দেয়। রাতেই রক্তাক্ত জখম অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। একাধিক ব্যক্তি জানান, আগামী ২৭ মে কলম ইউনিয়নের উপ-নির্বাচনকে প্রভাবিত ও এলাকায় আতংক সৃষ্টি করতে এই ঘটনা ঘটেছে বলে মন্তব্য করেন। এই এলাকায় সাম্প্রতিক কালে ইউপি চেয়ারম্যান ফজলার রহমান ফনুসহ কমপক্ষে ছয়জন খুন হয়েছেন এবং বেশ কয়েক জনের হাত পা কেটে দেয়া হয়েছে। এবিষয়ে মইনুল হক চুন্নুকে ফোন করলে তার ভাতিজা আসাদুল ইসলাম বলেন, মোহাম্মদ আলীর সাথে তাদের কোন বিরোধ নেই। অভিযোগ মিথ্যা ও অসত্য। তার চাচা মইনুল হক চুন্নুু কলম ইউনিয়য়ন পরিষদের উপ-নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হওয়ায় তার বিরুদ্ধে মিথ্যা অপ-প্রচার চালানো হচ্ছে বলে তিনি জানান সিংড়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম হাত কেটে দেয়ার সত্যতা স্বীকার করে জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।