নারায়ণগঞ্জে সাত খুন : গলায় রশি পেচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়

22320_narayanবিডি রিপোর্ট 24 ডটকম : লাশ উদ্ধারের অন্তত ৪৮ থেকে ৭২ ঘণ্টা আগে হত্যা করা হয়েছিল কাউন্সিলর নজরুল ইসলামসহ সাতজনকে। তাদের প্রত্যেককে মাথায় আঘাত করে অচেতন করার পর গলায় রশি পেচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। নিহতদের ময়না তদন্ত রিপোর্টে এমন তথ্য মিলেছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা। আজ ময়না তদন্তের রিপোর্ট আনুষ্ঠানিকভাবে জমা দেয়া হয়েছে। ২৭শে এপ্রিল অপহৃত হওয়ার তিন দিন পর শীতলক্ষ্যা নদীতে কাউন্সিলর নজরুল ও আইনজীবী চন্দন সরকারসহ অন্যদের হাত-পা বাঁধা লাশ পাওয়া যায়। ৩০শে এপ্রিল রাত থেকে সকালের মধ্যে সাতটি লাশের ময়নাতদন্ত হয় নারায়ণগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে। ময়না তদন্তকারী বোর্ডের প্রধান নারায়ণগঞ্জ জেলা হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক মো. আসাদুজ্জামান মিয়া বলেন, আলামত দেখে মনে হয়ে তাদের হত্যা করা হয়েছিল শ্বাসরোধে। তবে তার আগে অজ্ঞান করার জন্য মাথায় আঘাত করা হয়। এরপর লাশ ফেলে দেয়া হয় নদীতে। নিহতদের বুক ও পেটেও আঘাতের চিহ্ন ছিল। এ চিকিৎসকের মতে সাতজনকে একই কায়দায় হত্যা করা হয়। যারা হত্যা করেছে তারা দক্ষ এবং পেশাদার। তদন্ত রিপোর্টটি আজ সিভিল সার্জনের কাছে জমা দেয়া হয়েছে।