নালিতাবাড়ীতে যৌতুকের জন্য গৃহবধূকে নির্যাতন

Nalitabari Picture শাকিল মুরাদ, শেরপুর প্রতিনিধি   : শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার কলসপাড় ইউনিয়নের নাকশীতে যৌতুকের দাবিতে স্বামী কর্তৃক নির্যাতনের শিকার হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন শাহনাজ পারভিন (৩০) নামের এক গৃহবধূ।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, গৃহবধূ শাহনাজ পারভিন আই.এ পাশ করে একই ইউনিয়নের সাইদুর রহমানের ছেলে রুমান মিয়ার (৩৮) সাথে বিবাহ বন্ধনে সংসার জীবন অতিবাহিত করছিল। তাদের দাম্পত্য জীবনে তাদের ১টি ছেলে সন্তান রয়েছে। শাহনাজ একটি এনজিওতে চাকুরী করে মাসে কিছু বেতন পায়। সেই টাকা দিয়ে সংসারের কিছুটা খরচ চলে। কিছুদিন যেতে না যেতেই স্বামী রুমানের জুয়া খেলার প্রচন্ড নেশা চলে যায় পুরো জুয়াড়ীর জগতে। বাড়িতে শুরু করে ঝগড়াঝাটি। বিশেষ করে রাতের বেলায় প্রায় প্রতিদিনই রুমান বাড়িতে ফিরেই শাহনাজকে টাকার জন্য নানা-রকম চাপ দেয়। টাকা না পেলেই শুরু করে শাহনাজের উপর শারিরীক অত্যাচার।

এ নিয়ে গত ৩ মাসে তার বাড়ীর জিনিসপত্র প্রায় সব খুইয়ে ফেলেছে। বাপের বাড়ী থেকে আনা ১টি গরু, নগদ ৫০ হাজার টাকা। পরে রুমানের আরো ঋন করা ৪০ হাজার টাকাও পরিশোধ করা হয়। এরপরও রুমান ক্ষান্ত হয়নি সোমবার বিকেলে শাহনাজের কাছে আরো টাকা দাবী করে এ-নিয়ে শাহনাজের উপর নির্মম শারিরীক নির্যাতন চালায়। ব্যাপক মারপিটের কারনে হাতে পায়ে শরীরের প্রচন্ড আঘাত নিয়ে শাহনাজ নালিতাবাড়ী সদর হাসপাতালে ২দিন ধরে ভর্তি রয়েছে।

শাহনাজ বলেন, তার এরকম জুয়ার নেশার ব্যপারে বাড়ীর সকলে জানার পরও তাকে কঠোর ভাবে বাধা প্রদান করেনি। যার ফলে আজ এ হাল। এ ব্যাপারে নালিতাবাড়ী থানায় শাহনাজ ১টি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।