অপহরণের ৬ দিন পর ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার

marderবিডি রিপোর্ট 24 ডটকম : অপহরণের ৬দিন পর সিরাজগঞ্জের চৌহালী উপজেলার কাঠ ব্যবসায়ী আবুল কাশেমের (৪৫) লাশ সিলেটের সুরমা উপজেলার একটি বাড়ির পায়খানার স্লাবের নিচ থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। ২১শে এপ্রিল রাতে পাওনা টাকা দেয়ার কথা বলে কাশেমকে তার বাড়ি থেকে অপহরণ করা হয়। চৌহালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শামসুল হক জানান, উপজেলার চর সলিমাবাদ গ্রামের কাঠ ব্যবসায়ী ও স-মিল মালিক আবুল কাশেমকে একই উপজেলার ঘুকুরিয়া গ্রামের জহুরুল ইসলাম পাওনা ৫০ হাজার টাকা ফেরৎ দেয়ার কথা বলে চৌবাড়িয়া মোড়ে কাশেমকে ডেকে নিয়ে যায়। এ সময় জহুরুলের সঙ্গে থাকা আরও ৮/৯জন মিলে জোর করে কাশেমকে মাইক্রোবাসে তুলে নিয়ে যায়। এরপর থেকে কাশেমকে পাওয়া যাচ্ছিল না। ২৫শে এপ্রিল কাশেমের স্ত্রী আসমা খাতুন বাদী হয়ে থানায় জহরুলের নামে অপহরণ মামলা করেন। রবিবার দুপুরে সুরমা উপজেলার লাউয়া রায়ের পাড়া এলাকায় জহরুলের ভাড়া বাড়ির পায়খানা স্লাবের নিচ থেকে কাশেমের লাশ উদ্ধার করেছে সুরমা থানা পুলিশ। জহরুল আগে থেকেই ওই বাড়িতে ভাড়াটিয়া হিসাবে বসবাস করে আসছিল। নিহতের স্বজনরা জহুরুলের খোজে কয়েকদিন আগে সিলেট গেলেও তার বাড়ির সন্ধান পায়নি। এ ঘটনায় এখনও কেউ গ্রেপ্তার হয়নি। নিহতের লাশের ময়নাতদন্ত শেষে চৌহালীর নিজবাড়িতে আনা হবে। এজন্য নিহতের পরিবারের লোকজন সুরমায় অবস্থান করছেন।