জাহাজ ভাঙা : বিশ্বের অন্যতম বিপজ্জনক কাজ

33644_ship1বিডি রিপোর্ট 24 ডটকম : বাংলাদেশের জাহাজ ভাঙা শিল্পকে বিশ্বের সবচেয়ে বিপজ্জনক কাজগুলোর অন্যতম হিসেবে অভিহিত করেছে ডেইলি মেইল। ব্রিটিশ এই প্রভাবশালী পত্রিকাটি বুধবারের সংখ্যায় বলা হয়, মাত্র কিছু টাকার জন্য শ্রমিকেরা মৃত্যু বা মারাত্মকভাবে আহত হওয়ার ঝুঁকিতে থাকে। পরিবেশেরও ভয়াবহ ক্ষতি হচ্ছে এই শিল্পের কারণে। প্রতিবেদনে বলা হয়, চট্টগ্রাম শিপ ব্রেকিং ইয়ার্ড বিশ্বে বৃহত্তম জাহাজ ভাঙা প্রতিষ্ঠান। লোহায় পরিণত হতে এখানে উপকূলে সারি বেঁধে অপেক্ষা করছে প্রায় ৮০টি জাহাজ। এখানে কাজ করে দুই লাখেরও বেশি শ্রমিক। এখান থেকেই বাংলাদেশের চাহিদার অর্ধেক স্টিল পাওয়া যায়। ডেইলি মেইল জানায়, বেশির ভাগ জাহাজের আয়ু ২৫ থেকে ৩০ বছর। এরপর মেরামত করেও আর সেগুলো চালানো যায় না। তখন এগুলো ভেঙে স্টিলে পরিণত করা হয়। বাংলাদেশের সবচেয়ে গরিব শ্রমিকেরা দলবেধে নানা সরঞ্জাম হাতে ভাঙার কাজে নেমে পড়ে। কেবল লোহা-লক্কড়ই নয়, জাহাজে থাকা বিভিন্ন সরঞ্জাম, জ্বালানি, রাসায়নিক পদার্থও নতুন করে ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত করা হয়। জাহাজ ভাঙার কাজের বিষয়টি সরাসরি দেখতে ন্যাশনাল জিওগ্রাফিকের পিটার জিউইন চট্টগ্রাম সফর করেছেন। যেভাবে শ্রমিকেরা কাজ করছে, তা দেখে তিনি আঁতকে ওঠেছেন। তিনি আঙুলহীন, চোখহীন অনেককে দেখার কথা জানিয়েছেন। প্রতিবেদনে বলা হয়, উন্নত দেশে জাহাজ ভাঙার কাজে অনেক কঠোর বিধিবিধান অনুসরণ করা হয়। কিন্তু বাংলাদেশ, ভারত ও পাকিস্তানের মতো সস্তা শ্রমিকের দেশে তদারকি হয় ন্যূনতম মানে।