সাংস্কৃতিক আগ্রাসন মিথ্যাচার, ইতিহাস বিকৃতির প্রভাবে ছাত্রসমাজ বিভ্রান্ত হচ্ছে : জাহিদুর রহমান

manikবাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবিরের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি জাহিদুর রহমান বলেছেন, বিজাতীয় সাংস্কৃতিক আগ্রাসন, মিথ্যাচার আর ইতিহাস বিকৃতির প্রভাবে ছাত্রসমা কে বিভ্রান্ত করা হ”্ছ।ে তাই মেধা, বুদ্ধিমত্তা ও আদর্শ দিয়ে সত্যর বাণী প্রতিটি ছাত্রের কাছে পৌছে দিতে হবে।

তিনি আজ ছাত্রশিবির মানিকগঞ্জ জেলা শাখার বাছাইকৃত সাথী শিক্ষা শিবিরে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। শাখা সভাপতি নূরুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারী নাঈমুর রহমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা মহানগরী পশ্চিমের সভাপতি রবিন খান, কেন্দ্রীয় সহকারী প্রচার সম্পাদক জামাল উদ্দিন, মানবাধিকার বিষয়ক সহকারী সম্পাদক আহমেদ আব্দুল্লাহ প্রমূখ।

তিনি বলেন, যে কোন সমাজের ছাত্ররা যদি সত্যকে ধারণ করে তাহলে সমাজ পাল্টে যায়। এই মহা সত্যটি বুঝতে পেরেই ইতিহাস বিকৃতি, মাদক, বেহায়াপনা আর পার্শ্ববর্তী দেশের নোংরা সংস্কৃতির জোয়ার বইয়ে দিয়ে বাংলার ছাত্রসমাজকে বিভ্রান্ত ও বিপথগামী করতে সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাচ্ছে । অপশক্তি এ ষড়যন্ত্রে অনেকটা সফলও হয়েছে। দেশের ছাত্রসমাজকে ধ্বংসের ষড়যন্ত্র এখন শুধু দেশেই সীমাবদ্ধ নেই বরং তা আন্তর্জাতিক ভাবে বিস্তৃত হয়েছে। নিত্য নতুন কৌশলে এ অপশক্তি জাতি বিনাশী নানা কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে। এর বিপরীতে ছাত্রশিবির তার প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই অপসংস্কৃতি, মাদক, বেহায়পনা আর বিভ্রান্তি থেকে ছাত্রসমাজকে রক্ষা করতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। এখন সময়ের দাবী হচ্ছে ,ছাত্রশিবিরকে বাতিলের মোকাবেলায় আরও দক্ষতা ও বিচক্ষনতার পরিচয় দিতে হবে। বাতিল শক্তির মিথ্যা ও কুটকৌশলের বিপরীতে সত্যর বানী নিয়ে সাহসিকতা ও বুদ্ধিমত্তার সাথে এগিয়ে যেতে হবে। আগামী প্রজন্মকে রক্ষা করতে এবং কল্যাণময় ইসলামী সমাজ বিনির্মাণে দাওয়াতী কাজে আমাদের নির্ভীক হতে হবে। মনে রাখতে হবে, দুনিয়া ও আখিরাতে সফলতা অর্জনের যোগ্যতা সম্পন্ন নাগরিক তৈরীর মহান দায়িত্ব ছাত্রশিবির গ্রহণ করেছে।