‘গলার জোরে ক্ষমতায় থাকা যাবে না’: খালেদা জিয়া

16690_kh2বিডি রিপোর্ট 24 ডটকম :  বর্তমান সরকারকে অগণতান্ত্রিক দাবি করে বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, দেশে কোন গণতন্ত্র নেই। অন্যায়ভাবে জোর করে ক্ষমতায় বসে আছে সরকার। জুলুম চলছে দেশের ওপর। গলার জোর বেশীদিন টিকবে না। জনগণ কন্ঠ স্তব্ধ করে দেবে। গলার জোরে ক্ষমতায় থাকা যাবে না। শনিবার দুপুর দুইটার দিকে জাতীয় প্রেসক্লাবে বিএফইউজে’র সাধারণ সভায় যোগ দিয়ে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, সরকার সীমাহীন দুর্নীতি করেছে। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসলে দেশের কোন উন্নতি হয় না। উন্নতি হয় আওয়ামী লীগ পরিবারের। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসলে বাড়ি দখল করে, জমি দখল করে। দেশ স্বাধীনের  পর পাকিস্তানীদের সম্পত্তি দখলে নিয়েছে। হিন্দুদের বাড়িঘর দখল করেছে। মুক্তিযুদ্ধের সময় আওয়ামী লীগ নেতাদের  ভূমিকার সমালোচনা করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের নেতারা সীমান্ত পাড়ি দেয়া মুক্তিযোদ্ধা। আওয়ামী লীগের অনেক প্রভাবশালী নেতা মুক্তিযুদ্ধের শেষদিন পর্যন্ত পাকিস্তান সরকারের চাকুরি করেছে। এই হচ্ছে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তির নমুনা। তারা মুক্তিযুদ্ধের কথা বলে দেশের মানুষকে বিভ্রান্ত করছে।
খালেদা জিয়া বলেন, আমরা আন্দোলন করলে, মিছিল করলে গুলি করে মানুষ হত্যা করা হয়। কিন্তু সীমান্তে মানুষ হত্যা হচ্ছে। এর কোন প্রতিবাদ হয় না। বাংলাদেশের কৃষকের ফসল কেটে নিয়ে যায়। এর কোন প্রতিবাদ হয় না।
উপজেলা নির্বাচনের পর আন্দোলনের ঘোষণা দিয়ে তিনি বলেন, ৫ই জানুয়ারির নির্বাচন নিয়ে সারা দুনিয়ায় সমালোচনা হচ্ছে। এই সমালোচনা থেকে মানুষের দৃষ্টি ফেরাতে তারা উপজেলা নির্বাচন দিয়েছে। এই নির্বাচনে যখন দেখেছে আমাদের প্রার্থীরা জয়ী হচ্ছে তখন তারা কারচুপি ও কেন্দ্র দখল শুরু করে। রাতেই বাক্স ভরে রাখে। এই হল আওয়ামী লীগের গণতন্ত্রের নমুনা। নির্বাচন কমিশন আজ্ঞাবহ দাবি করে তিনি বলেন, এদের উচিত পদত্যাগ করা।