‘সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা নিয়ে ব্যবসা হয়েছে’

15904_sppবিডি রিপোর্ট 24 ডটকম  : সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের বাড়িতে হামলার ঘটনায় ব্যবসা করার জন্য অজ্ঞাতপরিচয় আসামিদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান ড. মিজানুর রহমান। আজ বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন। ড. মিজানুরের এ বক্তব্যের জবাবে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী  মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, এমন মন্তব্য করে মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান বিএনপি-জামায়াতের পক্ষ নিয়েছেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত তোফায়েল ও নাসিমকে উদ্দেশ্য করে ড. মিজান বলেন, সরকার ও প্রভাবশালী দুই মন্ত্রীর উদ্দেশে বলতে চাই, আমরা মানবাধিকার কমিশন থেকে যখন ঘটনাস্থলে গিয়ে খোঁজখবর নিয়েছি। তখন দেখেছি সংখ্যালঘুদের বাড়িতে ভাংচুর অগ্নিসংযোগের ঘটনায় হাতে গোনা কয়েকজনকে এজাহারভুক্ত আসামি করা হলেও অজ্ঞাতনামা আসামি করা হয়েছে কয়েকশ বা কয়েক হাজার। এটা দোষীদের খুঁজে বের করার জন্য নয়, ব্যবসা করার জন্য এভাবে মামলা করা হয়েছে। মানুষের নিরাপত্তা নিয়ে এ ধরনের ব্যবসা বন্ধ করতে হবে। একই অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেন, হামলার সঙ্গে কারা জড়িত এটা সবার কাছে স্পষ্ট। তিনি বলেন, এখানে একজন বক্তব্য দিয়ে চলে গেলেন, কিন্তু যারা সাম্প্রদায়িক হামলার সঙ্গে জড়িত তাদের বিরুদ্ধে কোন কথা বললেন না। কেন বললেন না? কারণ এরা হলো  সেই শক্তির ধারক। এরা তাদের খরচ যোগায়। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম বক্তব্য দিয়ে শুধু মাঠ গরম করা যায় বলে মন্তব্য করেন। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমদও তার বক্তব্যে মিজানের মন্তব্যের সমালোচনা করেন। তিনি বলেন, এখানে একজন মন্ত্রীদের উদ্দেশে বক্তব্য দিয়ে গেছেন। কিন্তু সাম্প্রদায়িক সহিংসতায় জড়িতদের নামটি পর্যন্ত উল্লেখ করলেন না। এখানে আমাদের বুদ্ধিজীবীদের সঙ্গে বিএনপি-জামায়াতের বুদ্ধিজীবীদের পার্থক্য। তারা স্পষ্ট করে কথা বলেন না। যেটা প্রকারান্তরে বিএনপি-জামায়াতের পক্ষেই যায়। সংখ্যালঘু নির্যাতনে জড়িতদের সরকার বিচারের আওতায় আনবে বলেও আশ্বাস দেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের এই সদস্য।